মহামারী এখন বিপজ্জনক পর্যায়ে: বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা

প্রকাশিত: ৯:১০ পূর্বাহ্ণ, জুন ২০, ২০২০

মহামারী এখন বিপজ্জনক পর্যায়ে: বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা

জেনিভা, ২০ জুন ২০২০: এক দিনে দেড় লাখ নতুন রোগী শনাক্তের তথ্য জানিয়ে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা বলছে, কোভিড-১৯ মহামারী এখন বিপজ্জনক পর্যায়ে রয়েছে।

শুক্রবার জেনিভায় ডব্লিউএইচও সদর দপ্তরে থেকে এক ভার্চুয়াল সংবাদ সংম্মেলনে সংস্থার মহাপরিচালক তেদ্রোস আধানম গ্যাব্রিয়েসুস এই সতর্কবার্তা দেন।
তিনি বলেন, “বিশ্ব এখন নতুন ও বিপজ্জনক পর্যায়ে উপনীত হয়েছে। এই ভাইরাস এখনও দ্রুত গতিতে বিস্তার লাভ করছে। বিশ্বের বেশিরভাগ মানুষ এখন ঝুঁকিতে।”
গত বছরের ডিসেম্বরে চীনের উহান থেকে ছড়িয়ে পড়ার পর নতুন করোনাভাইরাসের সংক্রমণ এখন সারাবিশ্বে। গত বৃহস্পতিবার একদিনে ১ লাখ ৫০ হাজার নতুন রোগী শনাক্তের কথা জানিয়েছে ডব্লিওএইচও।
বিশ্বে এ পর্যন্ত ৮৬ লাখের বেশি কোভিড-১৯ রোগী শনাক্ত হয়েছে। তার মধ্যে সাড়ে ৪ লাখের বেশি মানুষ মারা গেছে।
ইউরোপকে বিপর্যস্ত করে নতুন করোনাভাইরাসে নাকাল এখন আমেরিকা মহাদেশ। সবচেয়ে ২২ লাখ রোগী শনাক্ত হয়েছে যুক্তরাষ্ট্রে, তার পরের স্থানেই রয়েছে ব্রাজিল ১০ লাখের বেশি রোগী নিয়ে।
দক্ষিণ এশিয়ায়ও রোগীর সং খ্যা দ্রুত গতিতে বাড়ছে।
এই পরিস্থিতিতে সংক্রমণ এড়াতে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখা এবং স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার উপর আবারও জোর দিলেন ডব্লিউএইচও প্রধান।
তিনি বলেন, “একটি টিকা না পাওয়া পর্যন্ত এই পরিস্থিতি মোকাবেলা কঠিনই হবে।”
সংবাদ সম্মেলনে সংস্থার বিশেষজ্ঞ মাইক রায়ান বিভিন্ন দেশে সংক্রমণের দ্বিতীয় দফার ঢেউয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেন।
পরিস্থিতির আপত উন্নতিতে বিভিন্ন দেশের বিধি-নিষেধ তুলে নেওয়ার দিকটি নিয়ে তিনি বলেন, “লকডাউন থেকে বের হওয়ার সিদ্ধান্তটি সতর্কতার সঙ্গে নেওয়া উচিৎ। তা নিতে হবে ধাপে ধাপে, তথ্য-উপাত্ত বিশ্লেষণ করে।”
তবে চীনসহ কয়েকটি দেশে একস্থানে বেশ কিছু নতুন রোগী শনাক্ত হওয়াকে সংক্রমণের দ্বিতীয় দফা ঢেউ এখনই বলছেন না রায়ান।