জেলা পরিষদে আওয়ামী লীগের প্রার্থী একজনই, তিনি মিছবাহুর

প্রকাশিত: ৮:২৭ পূর্বাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ২৬, ২০২০

জেলা পরিষদে আওয়ামী লীগের প্রার্থী একজনই, তিনি মিছবাহুর

সেলিম অাহমদ || মৌলভীবাজার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২০ : আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী মৌলভীবাজার জেলা আওয়ামিলীগ সাধারণ সম্পাদক শ্রদ্ধেয় নেতা জনাব মিছবাহুর রহমান ও অন্যদিকে আওয়ামী লীগের নেতা লন্ডন প্রবাসী সিআইপি জনাব এম এ রহিম শহীদ দুই জনই মৌলভীবাজার জেলা পরিষদের উপ নির্বাচনের প্রার্থী। জনাব মিছবাহুর ভাই উনি আন্তরিক পরিচয় দিয়ে জনাব এম এ রহিম শহীদকে আলিঙ্গন করেছেন উনার একান্ত ব্যক্তিগত বিষয় মনে করে। এই আলিঙ্গনকে আমার দলের বড় ভাই কিংবা ছোট ভাই বা কর্মী প্রচার করা উচিত নয়। কারণ এই প্রচারে একই দলের লোক হিসাবে জেলা পরিষদের ভোটারা উভয় প্রার্থীর কাছ থেকে পায়দা লোঠাবে এবং ভোট দিবে সুযোগ বুঝে। যিনি আওয়ামী লীগের পার্থী জনাব মিছবাহুর রহমান উনার বিরুদ্ধে লড়ছেন জনাব এম এ রহিম শহীদ। দুজনের ছবি প্রকাশ করা মানেই দুজনকে একই ঘরের লোক মনে করে দেয়া যা একটা কৌশল। আওয়ামীলীগের মনোনীত প্রার্থী মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা স্বাক্ষর করা প্রার্থীর বিরুদ্ধে যিনি লড়েছেন তিনি নেত্রীর নির্দেশ বিরুদ্ধে লড়েছেন। সুতরাং আমরা দলীয় প্রার্থীর জনাব মিছবাহর রহমান এবং জনাব এম এ রহিম শহীদ আলিঙ্গন কে সুকৌশল প্রচার করে ভাইরাল না করার জন্য বিনীতভাবে অনুরোধ করছি আমি ব্যক্তিগত ভাবে। জেলা পরিষদের ভোটাররা মনে করতেছে বা আলাপ আলোচনা করতেছে জনাব মিছবাহুর রহমান এবং জনাব এম এ রহিম শহীদ একই দলের লোক। তাই দায়বন্ধ মনে করে লিখে জানাতে বাধ্য হলাম৷ আমার আওয়ামিলীগের সকল সহযোগী সংগঠনের নেতা কর্মী বড় ও ছোট ভাই সবাই প্রচার করা উচিত জনাব মিছবাহর রহমান আওয়ামী লীগের প্রার্থী ও জনাব এম এ রহিম শহীদ উনি ব্যক্তগত ভাবে প্রার্থী হয়েছেন। দলের মাঝে ঘাপটি মারা লোক এই নেতা সেই নেতা মনে করে বগলে ডুকছে ওরা সুকৌশলে করতেছে আওয়ামী লীগের প্রার্থীকে পরাজিত করার জন্য।

#
সেলিম অাহমদ
তথ্য ও গবেষণা বিষয়ক সম্পাদক
মৌলভীবাজার জেলা যুবলীগ