বৈষম্য হ্রাসের বৈশ্বিক তালিকায় ১১৩তম বাংলাদেশ

প্রকাশিত: ৬:৩৭ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ৯, ২০২০

বৈষম্য হ্রাসের বৈশ্বিক তালিকায় ১১৩তম বাংলাদেশ

ঢাকা, ০৯ অক্টোবর ২০২০: করোনাকালে বৈষম্য হ্রাসের পদক্ষেপ নেয়া সংক্রান্ত বৈশ্বিক তালিকায় ১৫৮টি দেশের মধ্যে ১১৩তম স্থানে আছে বাংলাদেশ। মহামারীর সময়ে বাংলাদেশের অর্থনৈতিক অগ্রগতি অন্য দেশের তুলনায় ভালো থাকলেও কমিটমেন্ট টু রিডিউসিং ইনইকোয়ালিটি ইনডেক্স (সিআরআই)-এর এই অবস্থান বেশ নাজুক।

অসমতা দূর করতে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেয়ার বৈশ্বিক এই তালিকায় মালদ্বীপ, শ্রীলঙ্কা, আফগানিস্তান এবং নেপালের চেয়েও পিছিয়ে বাংলাদেশ।

বাংলাদেশের চেয়ে আবার পিছিয়ে রয়েছে ভারত, পাকিস্তান এবং ভুটান।

ব্রিটিশ দাতব্য সংস্থা অক্সফাম এবং ডেভেলপমেন্ট ফাইনান্স ইন্টারন্যাশনাল যৌথভাবে বৃহস্পতিবার তালিকাটি প্রকাশ করে।

তাদের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ‘সামাজিক সূচকগুলোতে উন্নতির জন্য বাংলাদেশ কিছু পদক্ষেপ নিলেও অসমতা নিরসনের বিরুদ্ধে লড়াই করতে নীতিমালা প্রণয়নে সিদ্ধান্তমূলক পদক্ষেপ নেয়নি।’

করোনার সময়ে চিকিৎসকদের উৎসাহিত করতে যে ১১ মিলিয়ন ডলারের বোনাস পেমেন্টে ব্যয় করা হয়েছে, তার প্রশংসা আছে প্রতিবেদনে।

আগের সিআরআই-২০১৮-তে ১৫৭ দেশের মধ্যে বাংলাদেশের অবস্থান ছিল ১৪৮তম।

২০২০ সালের তালিকায় শীর্ষে রয়েছে নরওয়ে। তারপরে ডেনমার্ক এবং জার্মানি। সবার শেষে দক্ষিণ সুদান।

দক্ষিণ এশিয়ায় মালদ্বীপ ৭২তম। শ্রীলঙ্কা ৯৪ নম্বরে। আফগানিস্তান ১০২, নেপাল ১১২, পাকিস্তান ১২৮, ভারত ১২৯ এবং ভুটান ১৪৬।