উই থেকে অনুপ্রাণিত হয়ে উদ্যোক্তা জীবন শুরু করি অনলাইনে

প্রকাশিত: ৬:৫০ অপরাহ্ণ, জুন ১, ২০২১

উই থেকে অনুপ্রাণিত হয়ে উদ্যোক্তা জীবন শুরু করি অনলাইনে

মিথিলা হোসেন || ভৈরব বাজার, ০১ জুন ২০২১ : এই ছোটো জীবণে নিজের পরিশ্রম, মেধা , শিক্ষা দিয়ে অর্জন করা দুটো ভিন্নধর্মী কাজ।

আমি chemistry তে ফাস্টক্লাস পেয়ে গ্র্যাজুয়েট কমপ্লিট করা একজন নারী এবং সেই সাথে একজন উদ্যোক্তা🙂।
দ্বিতীয় ছবির কাজে আমাকে দেখে তা মানিয়ে নিতে আমার পরিচিত মানুষদের বেশ কিছুটা সময় লেগেছে।  এমনকি এখনো লাগছে । কারণ প্রথম ছবিতে এপ্রোন পড়া অবস্থায় অনেকেই দেখে অভ্যস্ত আমাকে।

গত বছরে  মাস্টার্স পরীক্ষা স্থগিত হয়ে যাওয়ায় উই থেকে অনুপ্রাণিত হয়ে উদ্যোক্তা জীবন শুরু করি অনলাইনে।
মনে আছে আমার ৮ কেজি ঘি এবং ৫কেজি মধু দিয়ে শুরু করেছিলাম । তখন আমি ছিলাম রিসেলার। পণ্যের গুণাগুণ, ধরণ, মান শিখতে প্রচুর পড়াশোনা এবং ঘুরে ঘুরে পণ্য দেখতে হয়েছে।
আলহামদুলিল্লাহ এখন পাবনার খাটি গাওয়া ঘি এবং সুন্দরবনের প্রাকৃতিক চাকের মধু সংগ্রহের জন্য আমাদের নিজস্ব প্রোডাকশন হাউজ ই রয়েছে। মাসে ৪০ কেজি ঘি তুলছি এমনো হচ্ছে এখন। আর মধু, চা পাতা এগুলো এখন মণ হিসাবে আনা হচ্ছে । আলহামদুলিল্লাহ।

সেই সাথে নিজস্ব কর্মীসহ নিজ এলাকা কিশোরগঞ্জে পেইজের নির্দিষ্ট প্রতিনিধি আছে, আছে নিজস্ব ডেলিভারি ম্যান।  দেশের বহু জেলাসহ মোট ৭টি বাহিরের দেশে আমার পেইজের পণ্য পৌছিয়েছে ।

আলহামদুলিল্লাহ নিজের পড়াশোনার পাশাপাশি একটি পরিচিতি দাঁড়া করাতে পেরেছি যেটি আমার জীবণের অনেক কষ্টের এবং সেই সাথে কষ্ট জয় করার মত একটি অধ্যায়।

👉মিথিলা
👉স্বত্বাধিকারী-আহারিকা
👉পাবনার কড়া জ্বালের খাটি গাওয়া ঘি , সিলেটের চা পাতা, গ্রিনটি, সুন্দরবনের চাক ভাঙ্গা মধু, হোম মেইড বেবি সেরেলাক, স্পেশাল রাইস সুজি, মিক্সড বাদাম গুড়ো তৈরী করছি।
👉কিশোরগঞ্জ জেলার ভৈরব উপজেলার মেয়ে ।

🚫বিঃদ্রঃ- এই পন্য এর গুনগত মান আমি ব্যক্তিগত ভাবে সকল নিয়ম মেনে ও পরীক্ষা করেই এখানে এর পরিচিতি  পোস্ট করেছি। আমার এই পণ্যের দায়ভার আমারই। “উই”  কর্তৃপক্ষ কোনভাবে এর ক্রয়-বিক্রয় র সাথে সম্পৃক্ত না এবং এর কোন দায়ভার বহন করেনা

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ